বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯, ০৯:০৬ অপরাহ্ন

এইচএসসি পাস করে মোটরসাইকেল ছিনতাইয়ের পেশায়

নিউজ ডেস্ক : রাস্তায় মোটরসাইকেল থামিয়ে নির্দিষ্ট দূরত্বে পৌঁছে দেয়ার সাহায্য চেয়ে ছিনতাই করত একটি চক্র। বেশিরভাগ সময় দামি মোটরসাইকেল টার্গেট করেই তারা এই কাজটি করত। চক্রের সেকেন্ড ইন কমান্ড মাহিদুল ইসলাম মাহিসহ তিন সদস্যকে গেপ্তার করে র‌্যাব-১।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গাজীপুরের টঙ্গী পূর্ব এলাকার ঝিনুক মার্কেট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গেপ্তার করা হয়। আটক অন্য দুজন হলেন আশিক মিয়া ও সাদেক মিয়া।

র‌্যাব জানায়, মাহি ২০১৬ সালে উত্তরা ইউনাইটেড কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করে গার্মেন্টসে চাকরি নেন। পরে জড়িয়ে পড়েন মোটরসাইকেল ছিনতাই চক্রে।

র‌্যাব-১ এর স্কয়াড কমান্ডার (সিপিসি-২) এএসপি মোহাম্মদ সালাউদ্দিন ঢাকাটাইমসকে জানান, ‘গত ২ মার্চ সামাদ নামের এক যুবক তার খালার বাসায় যাচ্ছিলো। পথিমধ্যে টঙ্গী স্টেশন রোডে এক যুবক তার কাছে সাহায্য চায়। সামাদ তাকে মোটরসাইকেলে উঠালে প্রথমে তাকে পাগাড় সোসাইটি এলাকায় নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে থাকা চক্রের বাকি সদস্যরা তাকে একটি ঘরে আটকে রাখে এবং তার কাছে থাকা ছয় হাজার টাকা, মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। ঘটনার পর র‌্যাব-১ ছায়া তদন্ত শুরু করে। পরে এই চক্রকে চিহ্নিত করা হয়।’

‘বৃহস্পতিবার চক্রটি ছিনতাইয়ের উদেশ্যে টঙ্গীর পূর্ব থানার ঝিনুক মার্কেটে এলাকায় জড়ো হলে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছে থেকে ছিনতাই করা একটি মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়েছে।’

র‌্যাবের এই কর্মকর্তা জানান, ‘চক্রের সেকেন্ড ইন কমান্ড মাহির বন্ধু বোমা সোহেল এই চক্রের মূলহোতা। সোহেলই তাকে এই পেশায় এনেছে। তারা টঙ্গী ও আশপাশের এলাকায় মোটরসাইকেল আরাহীদেরকে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে মোবাইল, টাকা ছিনতাই করত। এই চক্রের বাকি সদস্যদের গ্রেপ্তারে র‌্যাব সদস্যরা কাজ করছে।’


©2014 - 2018. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com