বৃহস্পতিবার, ২২ অগাস্ট ২০১৯, ০৮:৩৭ পূর্বাহ্ন

রক্তের ফেরিওয়ালা এজেড মিজান

রক্তের ফেরিওয়ালা এজেড মিজান

আব্দুল্লাহ হেল বাকী, ধামইরহাট (নওগাঁ) প্রতিনিধি:  রক্ত দিন জীবন বাঁচান এই মুলমন্ত্র হৃদয়ে ধারন করে রক্ত দানে উৎসাহ প্রদান ও রোগীদের জীবন বাঁচাতে রক্ত সংগ্রহ কাজে সেচ্ছায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে নওগাঁর পত্নীতলায় উপজেলার এক মহানুভবতার নজির স্থাপন করেছেন এজেড মিজান (৪০)।

 

 

তিনি জেলার পত্নীতলা উপজেলার নজিপুর পৌর এলাকার কলোনীপাড়ার বাসিন্দা। মরহুম আব্দুর রহমানের সুযোগ্য পুত্র। তিনি বর্তমানে নজিপুর বাসস্ট্যান্ড ধামইরহাট রোডের বিশিষ্ট মোবাইল ফোন ব্যবসায়ী ও নজিপুর বাসষ্ট্যান্ড বণিক সমিতির পর পর তিন বার নির্বাচিত সফল সাধারণ সম্পাদক।

 

 

নজিপুর বাজারের জাহাঙ্গির আলম বলেন, একজন গরীব অসহায় রোগীর রক্তের প্রয়োজনে রক্তের ফেরিওয়ালা এজেড মিজান আমাকে ফোন দিল আমি সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে গিয়ে রক্ত দিলাম।

 

 

এজেড মিজান বলেন, এখন পর্যন্ত ৬ বছর ধরে প্রায় তিন হাজার লোকের রক্ত সংগ্রহ করে আসছি। কোন রোগীর রক্ত প্রয়োজন হলে জানতে পেরে সঙ্গে সঙ্গে সেচ্ছায় রক্তের ব্যবস্থা করে থাকি। কেউ রক্ত দান করতে চাইলে অথবা কেউ রক্ত নিতে চাইলে তাদের দুজনেরই রক্তের গ্রুপ, নাম ঠিকানা ও মোবাইল নম্বর নোট বুকে লিখে রাখি সঙ্গে সঙ্গে। কারো রক্তের প্রয়োজন হলে ওই লিষ্ট অনুযায়ী আগ্রহ রক্ত দাতাদের সহযোগীতায় সেচ্ছায় রক্ত দানে উৎসাহ প্রদান করি। এতে করে ওই রোগীদের জীবন বাঁচে।

 

 

 

তিনি আরো জানান, রক্ত দানে ও রক্ত সংগ্রহ করে মানুষের জীবন বাঁচানো শুধু ইহকালের উপকার নয় বরং ইসলামী শরীয়ত মোতাবেক এর ফল পরকালেও পাব বলে আমি মনে করি। এতেই আমার তৃপ্তি। আমি যতদিন বাঁচবো ততদিন রক্ত দানে মানুষের উপকার করে যাব। এখন আমাকে সবাই রক্তের ফেরিওয়ালা বলেই চিনে।


©2014 - 2018. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com