সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯, ০৯:১১ পূর্বাহ্ন

মসজিদের চাল ও টিন নিয়ে যাওয়ায় যুবলীগ নেতার নামে মামলা

মসজিদের চাল ও টিন নিয়ে যাওয়ায় যুবলীগ নেতার নামে মামলা

শরীয়তপুর জেলার ভেদরগঞ্জ উপজেলার সখিপুর থানার চরভাগা ইউনিয়নের কফিলুদ্দিন মোল্যা কান্দি গ্রামে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মসজিদ মেরামতের জন্য নামিয়ে রাখা চাল প্রতিপক্ষের লোকজন লুটপাট করে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ সময় মসজিদ কমিটির এক সদস্যের বাড়ী লুট করে স্বর্ণালংকার নিয়ে যায় এবং ৩ জনকে মারধর করারও অভিযোগ রয়েছে।

এ ঘটনায় স্থানীয় মুসল্লীদের মধ্যে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে। এ ঘটনার পর মসজিদ কমিটির সদস্য আলাউদ্দিন মুতাইত বাদী হয়ে শরীয়তপুর চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে (সখিপুর) মামলা দায়ের করেছে। আদালত মামলাটি সিআইডিকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

তবে প্রতিপক্ষের দাবী তারা মসজিদের ওয়াকফকৃত স্থানে মসজিদের চাল নিয়ে রেখেছে। লুটপাট করেনি।

স্থানীয় চরভাগা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মসজিদ ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মাস্টার মতিউর রহমান ও মামলার এজহার সূত্রে জানা গেছে, ১৯৮৭ সালে শরীয়তপুর জেলার ভেদরগঞ্জ উপজেলার সখিপুর থানার চরভাগা ইউনিয়নের কফিলুদ্দিন মোল্যাকান্দি গ্রামে মাস্টার মতিউর রহমানের বাড়ির সামনে কফিলুদ্দিন মোল্যাকান্দি বাইতুল আমান নামে একটি মসজিদ প্রতিষ্ঠা করা হয়।

এরপর থেকে স্থানীয় মুসল্লিরা নামাজ আদায় করে আসছে। মসজিদটি প্রতিষ্ঠা করেন চরভাগা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মাস্টার মতিউর রহমান।

এই মসজিদের ১২০ গজ উত্তর পাশে একই গ্রামের কফিলুদ্দিন মোল্যার ছেলে সাহাবুদ্দিন মোল্যা প্রায় ৪৫ বছর পূর্বে ফোরকানিয়া মাদ্রাসার নামে ৩৩ শতক জমি দান করেন। সাহাবুদ্দিন মোল্যার মৃত্যুর পরে তার ওয়ারিশগন দেওয়ানী মামলার মাধ্যমে উক্ত মাদ্রাসার জমি তাদের নিজ নামে নিয়ে যায়।

গত জানুয়ারী মাসে মৃত সাহাবুদ্দিন মোল্যার নাতি চরভাগা ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ড সদস্য ও চরভাগা ইউনিয়ন যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক মোঃ কাওসার আহমেদ বকাউল এর নেতৃত্বে ফোরকানিয়া মাদ্রাসার স্থানে সরকারী ও বে-সরকারী অনুদানে মোল্যাকান্দি মসজিদ নামে একটি মসজিদ নির্মাণ করেন। এ নিয়ে স্থানীয় দুই পক্ষের মধ্যে বিরোধ চলে আসছে।

কিছু দিন আগে মাস্টার মতিউর রহমান এর বাড়ীর সামনের মসজিদটি মেরামত করার জন্য চারটি চাল নিচে নামিয়ে রাখা হয়। এ সময় যুবলীগ নেতা কাওসার আহমেদ ও তার সমর্থকরা মসজিদ মেরামত কাজে বাঁধা দেয় এবং তারা সাহাবুদ্দিন মোল্যার দান করা স্থানে নির্মিত মসজিদে যাওয়ার প্রস্তাব করেন। পরে ঈদুল ফিতরের সময় স্থানীয় মুরব্বিদের মাধ্যমে পুনরায় মসজিদটি মেরামত কাজের উদ্যোগ নেয়া হয়।

এরপর গত ৯ জুন সকালে যুবলীগ নেতা কাওসার আহমেদ এর নেতৃত্বে মাস্টার মতিউর রহমান এর বাড়ীর সামনের মসজিদ ঘরের মেরামত কাজের জন্য নামিয়ে রাখা চালগুলো এবং ৪ বান্ডেল ঢেউটিন নিয়ে যায়।

এ ঘটনার পর গত ১১ জুন মসজিদ কমিটির সদস্য আলাউদ্দিন মুতাইত বাদী হয়ে যুবলীগ নেতা কাওসার আহমেদসহ ১৫ জনকে আসামী করে শরীয়তপুর চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে (সখিপুর) একটি মামলা দায়ের করেছে।

মামলার বিবরণে আরো জানা যায়, মসজিদের চালগুলো নেয়ার সময় আলাউদ্দিন মুতাইত এর উপর হামলা চালিয়ে তাকেসহ ৩ জনকে মারধর করা হয়। এ সময় আলাউদ্দিন মুতাইত এর কাছে থাকা নগদ ২০ হাজার টাকা ও ঘরে থাকা প্রায় ৫ ভরি স্বর্ণালংকার নিয়ে যায় বলেও মালায় উল্লেখ করা হয়েছে।

যুবলীগ নেতা কাওসার আহমেদ বকাউল বলেন, আমার নানা সাহাবুদ্দিন ম্যোল্যা মসজিদ ও মাদ্রাসার নামে জমি দান করেছেন। নানার ওসিয়ত রক্ষার জন্য মসজিদ ও মাদ্রাসার নামে তার দান করা স্থানেই মসজিদ নির্মাণ করেছি। মতিউর রহমান মাস্টারের ভাইয়ের বাড়ির সামনের মসজিদের চাল মসজিদের নামে ওয়াক্ফকৃত স্থানে নিয়ে রেখে দিয়েছি। লুটপাট ও মারধরের বিষয়টি সম্পন্ন মিথ্যা এবং বানোয়াট।

চরভাগা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মসজিদ ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মাস্টার মতিউর রহমান বলেন, ‘স্থানীয় মুসল্লিদের ইবাদতের জন্য ৩২ বছর আগে আমরা এ মসজিদ প্রতিষ্ঠা করেছি। অথচ একবছর আগে যুবলীগ নেতা কাওসার আহমেদ বকাউল পাশেই একটি মসজিদ নির্মাণ করে প্রভাব খাটিয়ে আমাদের মসজিদটি নিয়ে যেতে চাচ্ছে। আমাদের মসজিদের মেরামত কাজে বাঁধা দিচ্ছে।

গত ৯ জুন মসজিদের মেরামত কাজ চলাকালীন সময় কাওসার আহমেদ বকাউল এর নেতৃত্বে ৪০/৫০ লোক দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে এসে আমার ভাইসহ ৩ জনকে মারধর করার পর বাড়ীতে লুটপাট করে স্বর্ণালংকার নিয়ে যায়। এ সময় তারা মসজিদ মেরামতের জন্য নামিয়ে রাখা ৪টি চাল ও ৪ বান্ডেল ঢেউটিন নিয়ে গেছে। আমরা আদালতে মামলা দায়ের করেছি।’

সখিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ এনামুল হক বলেন, আমি শুনেছি মসজিদের ওয়াক্ফকৃত স্থানে নিয়ে চালগুলো রাখা হয়েছে। এ বিষয় লিখিত কোন অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ ফেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


©2014 - 2018. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com