বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ০৮:০১ পূর্বাহ্ন

ইঁদুর নিধনে ৩ কোটি ২০ লাখ ডলারের প্রকল্প

ইঁদুর নিধনে ৩ কোটি ২০ লাখ ডলারের প্রকল্প

নিউইয়র্কে ইঁদুর নিধন প্রকল্পে ৩ কোটি ২০ লাখ ডলারের প্রকল্প নেওয়া হয়েছে। ইঁদুরের উপদ্রবে অতিষ্ঠ ব্যস্ততম নিউইয়র্ক শহর। ম্যানহাটনের ব্যস্ততম সাবওয়েতে, সিটির অধিকাংশ পুরনো ভবনে, বিভিন্ন রেস্তোরাঁয় ইঁদুরের উৎপাত বেড়ে চলেছে।

আবর্জনার ক্যানের ভেতরেও স্বল্প সময়েই বাসা বাঁধছে, বংশ বিস্তার করছে ইঁদুর। নিউইয়র্ক সিটিতে অসংখ্য রোগের বাহক এই ইঁদুর। যাদের সংখ্যা ৮০ লাখেরও বেশি বলে মনে করা হচ্ছে। সিটির ৮০ লাখ জনসংখ্যার প্রত্যেকের ভাগে একটি করে ইঁদুর সঙ্গী রয়েছে।

২০১৭ সালের শুরু থেকে এ পর্যন্ত সিটির স্বাস্থ্য বিভাগ ইঁদুর বিষয়ে ১০ হাজারের বেশি অভিযোগ পেয়েছে। এ ছাড়া ম্যানহাটন, ব্রুকলিন ও ব্রঙ্কসে ২৪ হাজারের অধিক বাড়ি পরিদর্শনে ১৫ শতাংশেরও বেশি বাড়িতে ‘ইঁদুরের অস্তিত্বের চিহ্ন’ পেয়েছে সিটির স্বাস্থ্য বিভাগ।

সিটির পার্ক, সাবওয়ে এবং অ্যাপার্টমেন্ট ভবনে ইঁদুরের উৎপাত বেশি। এমন বিড়ম্বনার মধ্যে গত জুলাই মাসেই ইঁদুর নিধনের জন্য বিশেষ একটি প্রকল্পে তিন কোটি ২০ লাখ ডলার ব্যয়ের ঘোষণা দেন সিটি মেয়র বিল ডি ব্লাজিও। এই প্রকল্পে এক বছরের মধ্যে অন্তত ৭০ শতাংশ ইঁদুর মেরে ফেলার লক্ষ্য স্থির করেছে সিটি প্রশাসন।

সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হওয়া ইঁদুর নিধনের এই প্রকল্পে নিউইয়র্ক সিটির স্যানিটেশন, পার্ক ও স্বাস্থ্য বিভাগের মতো বিভিন্ন সংস্থাকে যুক্ত করা হচ্ছে। সিটির রাস্তায় পুরোনো সব ময়লার ঝুড়ি সরিয়ে বসানো হবে স্টিলের নতুন ঝুড়ি। একোমিল নামে পরিচিত ইঁদুরের ফাঁদ ব্যবহার করা হবে ইঁদুরের বিরুদ্ধে।

নিউইয়র্কের কর্মকর্তাদের মতে, এই ডিভাইসটিতে তিনটি জিনিস জড়িত। একটি মেশিন, একটি ট্র্যাপের দরজা এবং তরল অ্যালকোহল দ্বারা পূর্ণ পুল। ডিভাইসটির আমদানিকারক ইঁদুর ট্র্যাপের সভাপতি অ্যান্টনি গিয়াকুইন্টোর মতে, ফাঁদের দরজা দিয়ে ইঁদুর ঢুকে গেলে, ইঁদুর ছিটকে একটি বালতির ভেতরে থাকা তরল পুলে পড়ে শেষ পর্যন্ত ডুবে মারা যায়।

ব্রুকলিনে এক মাসব্যাপী এই ডিভাইস ব্যবহার করে ১০৭টি ইঁদুরকে ফাঁদে ফেলা হয়েছিল। এই ডিভাইসের ইঁদুরের ট্যাংকে ৮০টি ইঁদুর ধরে রাখতে পারে। এই ডিভাইসটি ইঁদুর মুক্ত শহর গড়ে তুলতে পারে সেই আশাই করছে নগর কর্তৃপক্ষ।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

©2014 - 2019. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com