শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮, ০৮:০৯ পূর্বাহ্ন

দায়িত্ব নিয়েই নগরবাসীকে সুসংবাদ লিটনের

দায়িত্ব নিয়েই নগরবাসীকে সুসংবাদ লিটনের

নিজস্ব প্রতিনিধি: রাজশাহী নগরীর উন্নয়নে কাজ করার অঙ্গিকার করেছেন সিটি মেয়র (রাসিক) এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন।গতকাল শুক্রবার বিকেলে রাসিক মেয়র হিসেবে দায়িত্বভার নেয়ার পর নগরবাসীকে সুসংবাদ দিয়েছেন।

বিকেলে নগর ভবনের গ্রীণ প্লাজায় আয়োজিত ওই অনুষ্ঠানে সভাপতিত্বে করেন রাজশাহীর বিভাগীয় কমিশনার নূর-উর-রহমান। এতে রাসিক নবনির্বাচিত পরিষদের ৩০ কাউন্সিলর ও ১০ সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হন তিনি।
মেয়র লিটন বলেন, মেয়রের কাজ শুধু রাস্তা-ঘাট পরিষ্কার, ড্রেন পরিষ্কার ও মশক নিধন নয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যেমন দেশের সার্বিক উন্নয়ন করছেন, তেমনি তিনিও নগরীর মানুষের সার্বিক কল্যাণ নিশ্চিত করতে চান।

বিপুল ভোগে নির্বাচিত করায় নগরবাসীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে তিনি বলেন, আপনারা আমাকে বিপুল ভোটে মেয়র নির্বাচিত করেছেন। এজন্য আমি সবার কাছে ঋণী। আমি এই ঋণ পরিশোধ করতে পারব না। করতেও চাই না। আমি আপনাদের সঙ্গে থাকতে চাই।

তিনি আরও বলেন, রাজশাহীতে পূর্ণাঙ্গ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় করতে চাই। রাজশাহী-ঢাকা বিরতিহীন ট্রেন আগামী তিন/চার মাসের মধ্যে চালু করা সম্ভব হবে। এছাড়া রাজশাহী-কলকাতা ট্রেন চালু করবো। রাজশাহীতে বিগত সময়ে শিল্পায়ন হয়নি। শিল্পায়ন করা হবে। এসময় নগরবাসীকে দেয়া সব প্রতিশ্রুতি পুরণেরও অঙ্গিকার করেন মেয়র।

অনুষ্ঠানে মেয়র লিটন পত্নী ও নগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবী শাহীন আকতারও বক্তব্য রাখেন। রাজশাহীকে আবারও বদলে দিতে সবার পরামর্শ ও সহায়তাও চান তিনি। মেয়রপত্নী বলেন, আগামীতে রাজশাহী শুধু দেশের মধ্যে নয়, বিশ্বের মানচিত্রে রাজশাহীর নাম জলজল করবে। রাজশাহী হবে শ্রেষ্ঠ নগরী।

এর আগে বিকেল তিনটার দিকে সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলদের সঙ্গে নিয়ে নগরভবনে যান এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। নগরভবনে পৌঁছালে সিটি করপোরেশনের কর্মকর্তাবৃন্দ নবনির্বাচিত মেয়রকে ফুলের শুভেচ্ছা জানান। এরপর জাতীয় পতাকা ও সিটি করপোরেশনের পতাকা উত্তোলন করেন। পতাকা উত্তোলনের পর বেলুন ও পায়রা উড়ান তিনি।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, উপমহাদেশের প্রখ্যাত কথাসাহিত্যিক হাসান আজিজুল হক, সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা, ওমর ফারুক চৌধুরী, আব্দুল ওয়াদুদ দারা, ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক, আয়েন উদ্দিন, সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য আকতার জাহান, স্থানীয় সরকার বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মাহবুব হোসেন, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এনজিও বিষয়ক ব্যুরো মহাপরিচালক কেএম আব্দুস সালাম, রাজশাহীর অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার আমিনুল ইসলাম, জেলা প্রশাসক এসএম আবদুল কাদের, রাবির সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক আব্দুল খালেক, কবিকুঞ্জের সভাপতি অধ্যাপক রুহুল আমিন প্রামাণিক, নগর পুলিশ কমিশনার একেএম হাফিজ আক্তার, রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের সাবেক মেয়র আব্দুল হাদি ও দুরুল হুদা, ২১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নিযাম-উল-আজিম প্রমুখ। স্বাগত বক্তব্য দেন সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শাহ মোমিন।

অনুষ্ঠানে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড.এম আব্দুস সোবহান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী সরকার, মেয়র লিটন কন্যা ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি আনিকা ফারিহা জামান অর্নাসহ সিটি করপোরেশনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, রাজশাহী প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, গত ৩০ জুলাই রাজশাহী সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলকে বিপুলভোটের ব্যবধানে পরাজিত করে মেয়র নির্বাচিত হন রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতির এএইচএচ খায়রুজ্জামান লিটন। গত ৫ সেপ্টেম্বর গণভবনে মেয়র লিটনকে শপথবাক্য পাঠ করান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এরআগে ২০০৮ থেকে ২০১৩ সাল মার্চ পর্যন্ত প্রথম মেয়াদে মেয়রের দায়িত্বে থাকাকালে রাজশাহীর ব্যাপক উন্নয়ন করে নগরীর চেহারায় পাল্টে দিয়েছিলেন তিনি।


©2014 - 2018. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com