মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৮:১৪ অপরাহ্ন

আরবি মাসের তাৎপর্য সকল মুসলিম ধমালম্বীদের মাঝে তুলে ধরতে হবে: ডিসি মামুনুর রশিদ

আরবি মাসের তাৎপর্য সকল মুসলিম ধমালম্বীদের মাঝে তুলে ধরতে হবে: ডিসি মামুনুর রশিদ

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসক এ কে এম মামুনুর রশিদ বলেছেন, যাকাত, রোজা’সহ ইসলামের সকল অনুষ্ঠান এই আরবি মাসকে ঘিরে। তাই আরবি মাসের তাৎপর্য সকল মুসলিম ধমালম্বীদের মাঝে তুলে ধরতে হবে। তিনি বলেন, ইসলাম হচ্ছে শান্তির ধর্ম। তাই ধর্মের সু-বার্তাগুলো বিশ্ববাসির কাছে তুলে ধরতে পারলে সমাজ তথা দেশ থেকে জঙ্গীবাদ, মাদক, অসামাজিক কার্যকলাপ দূর হবে।
রাঙ্গামাটিতে হিজরি নববর্ষ ১৪৪১ উদযাপন উপলক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক এসব কথা বলেন।রবিবার (১ সেপ্টেম্বর) বিকেলে রাঙ্গামাটি প্রেসক্লাবে হিজরি নববর্ষ উদযাপন পরিষদ কর্তৃক আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন হিজরি নববর্ষ উদযাপন পরিষদের আহ্বায়ক মাওলানা এম এ মুস্তফা হেজাজী। এ সময় অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক হিসেবে চট্টগ্রাম শিক্ষক প্রশিক্ষণ মহাবিদ্যালয়ের প্রশিক্ষক ম আ শ শামসুদ্দীন শিশির, বিশেষ অতিথি হিসেবে রাঙ্গামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী পরিচালক মোঃ সাইফুল আলম, রাঙ্গামাটি প্রেসক্লাবের সভাপতি মোঃ সাখাওয়াৎ হোসেন রুবেল,

 

রাঙ্গামাটি সরকারী কলেজ ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন, কাপ্তাই আল আমিন নূরিয়া দাখিল মাদরাসার সুপার আলহাজ্ব মাওলানা জসিম উদ্দীন নূরী, রাঙ্গামাটি বৃহত্তর বনরূপা ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি মোঃ আবু সৈয়দ, রাঙ্গামাটি জেলা গাউছিয়া কমিটির সাবেক সভাপতি আলহাজ্ব মোঃ জানে আলম, ট্রাক-মিনিট্রাক মালিক শ্রমিক যৌথ কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব সাব্বির আহমদ ওসমানী বক্তব্য দেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন হিজরি নববর্ষ উদযাপন পরিষদের যুগ্ন আহ্বায়ক আলহাজ্ব মোঃ আখতার হোসেন চৌধুরী। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন, হিজরি নববর্ষ উদযাপন পরিষদের সদস্য সচিব সাংবাদিক ইয়াছিন রানা সোহেল।

 

 
আলোচনাসভায় জেলা প্রশাসক বলেন, হিজরি নববর্ষ উদযাপন পরিষদ গত দুই বছরের ন্যয় এবছরও এ অনুষ্ঠানটি উদযাপন করছে। এটি অবশ্যই প্রশংসার দাবী রাখে। তিনি বলেন, ভবিষ্যতে আরো বৃহৎ আকারে এ অনুষ্ঠানটি করা হলে সকলের মাঝে হিজরি মাস সম্পর্কে অবগত হবে।


©2014 - 2018. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com