সোমবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৯, ০৮:০১ অপরাহ্ন

রাজশাহীর চারঘাট-বাঘা সড়কে গর্ত, ঘটছে দুর্ঘটনা

চারঘাট প্রতিবেদক : রাজশাহীর চারঘাট-বাঘা মহাসড়কের কয়েকটি স্থানে রাস্তা দেবে গিয়ে সৃষ্টি হয়েছে বড় গর্তের। রাস্তায় চলতে গিয়ে ঘটছে অহরহ দুর্ঘটনা। গত কয়েকমাস ধরে এমন অবস্থা বিরাজ করলেও সংশ্লিষ্ট দপ্তরের কর্মকর্তারা রয়েছেন নির্বিকার।

জানা যায়, চারঘাট-বাঘা মহাসড়কের কাঁকরামারী ঘোষের মোড় থেকে রাওথা নাদের আলী কলেজ পর্যন্ত বিভিন্ন স্থানে পাকা রাস্তা দেবে গিয়ে সৃষ্টি হয়েছে গর্তের। কয়েক মাস আগে ক্ষতিগ্রস্থ ওই সকল স্থানে পচা ইট দিয়ে কোন রকম মেরামত করা হলেও সেগুলো ভেঙ্গে রাস্তায় আবারও সৃষ্টি হয়েছে গর্তের।

এছাড়াও চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে রাস্তার পিচ উঠে গিয়ে সেখানে সৃষ্টি হয়েছে বিশাল গর্তের। ব্যস্ততম এ রাস্তা দিয়ে ঢাকাসহ দক্ষিনাঞ্চলে যাওয়া যানবাহন গুলো রাত বিরাতে চলতে গিয়ে অহরহ দুর্ঘটনার কবলে পড়ছে। আর এতে চরম ঝুকির মধ্যে পড়েছে রাস্তার ধারে বসবাসকারী লোকজন।

গত কয়েক মাস ধরে এভাবে রাস্তা পারাপার করতে গিয়ে মাল বোঝায় ট্রাকসহ ছোট ছোট যানবাহন প্রতিনিয়তই ঘটছে দুর্ঘটনা। এতে চরম ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছেন পথচারীরা। সংশ্লিষ্ট দপ্তরের উদাসিনতায় রাস্তাঘাটের এমন করুন অবস্থা বলে অভিযোগ করেছেন এলাকাবাসী।

কাঁকরামারী ঘোষের মোড়ের নবী আলম জানান, গত কয়েকদিন আগে এখানে একটি মাল বোঝায় ট্রাক আটকে চরম বেকায়দায় পড়তে হয়েছে এ রাস্তা দিয়ে চলাচলকারী যানবাহন চালকদের। স্থানীয়দের সহায়তায় ট্রাকটি উদ্ধার করার পর থেকে সেখানে এখন বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। পিচ উঠে মাটি বের হয়ে গেছে। এতে চরম বেকায়ার মধ্যে দিয়ে চলছে যানবাহন।

অপর দিকে একই অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে কাঁকরামারী বাজার থেকে ১০০ গজ দক্ষিণে। একটু বৃষ্টি হলেই জমে থাকে পানি। এখন এ দুটি স্থানই মরন ফাঁদে পরিনত হয়েছে।

মেরামতপুর এলাকার আব্দুল কাদির বলেন, গত কয়েক মাস ধরে ঘোষের মোড় থেকে রাওথা নাদের আলী কলেজ পর্যন্ত বিভিন্ন স্থানে রাস্তা দেবে গিয়ে সৃষ্টি হয়েছে বড় গর্তের। বিভিন্ন স্থানে ইট বালি ফেলে চলাচলের চেষ্টা করা হলেও এখন বিভিন্ন স্থানে সৃষ্টি হয়েছে মরন ফাঁদ। দ্রুত ব্যস্ততম রাস্তাটি মেরামত করা না হলে যে কোন সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশংকা করছেন স্থানীয়রা।

নাম প্রকাশে অনিচছুক জনৈক ব্যাক্তি জানান, ব্যস্ততম এ রাস্তাটিতে অধিক ওজনের যানবাহন চলায় প্রতিনিয়তই রাস্তা দেবে যায়। গত কয়েক মাস পুর্বে রাস্তাটি সংস্কার করা হলেও কয়েক মাসের ব্যবধানে রাস্তাটি দেবে গিয়ে পিচ উঠে এখন মাটির রাস্তায় পরিনত হয়েছে। অপরদিকে পানি নিস্কাশনের ব্যবস্থা নাজুক হওয়ায় রাস্তায় পানি জমে রাস্তা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে। এছাড়াও রাস্তায় নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহারের অভিযোগ করেছেন এলাকাবাসী।

এ বিষয়ে চারঘাট উপজেলা নির্বাহী প্রকৌশলী মকবুল হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, রাস্তাটি আসলে সড়ক ও জনপথ বিভাগের।আমাদের কিছুই করার নেই।সড়ক ও জনপথ বিভাগ এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে পারবেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

©2014 - 2019. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com