শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ০৯:২৯ পূর্বাহ্ন

জাহান্নামে কী কী খাবার দেয়া হবে ?

ডেক্স : পরকালে মুক্তির জন্য ঈমান আনা অপরিহার্য। ঈমানদারা জান্নাতে আরাম আয়েশে থাকবে। তাদের জন্য থাকবে বিভিন্ন রকমের খাদ্য দ্রব্য।

অন্যদিকে, কাফিররা চিরকাল জাহান্নামে থাকবে। জাহান্নামেও তাদের জন্য রয়েছে খাবারের ব্যবস্থা। তবে সেটি খুব ভালো খাবার হবে না।

এ বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাব দিয়েছে বিশিষ্ট আলেম ড. মুহাম্মদ সাইফুল্লাহ। একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে এক অনুষ্ঠানে এ প্রশ্নের জবাব দেন।

প্রশ্ন হল: জাহান্নামে দুর্নীতিবাজদের কী কী খাদ্য দেওয়া হবে?

উত্তরে তিনি বলেছেন, খুব সহজ কথা। জাহান্নামীদের যে খাদ্য দেওয়া হবে, সেটি খুব ভালো খাবার হবে না। আল্লাহ তায়ালা তাদের জন্য জাক্কুম নামে এক গাছ খেতে দেবেন। এটি কাঁটাযুক্ত একটি গাছ, এই গাছটি না গিলতে পারবে না ফেলতে পারবে।

জাহান্নামিরা যখনই গেলার চেষ্টা করবে তখনই তার শরীরের ভেতরের সব কিছু ছিঁড়ে যাবে, নষ্ট, ধ্বংস হয়ে যাবে। এটি অত্যন্ত কঠিন খাবার। একটি কথা আমি বলতে চাই, জাহান্নামের বিষয়টি আমরা সতর্ক হওয়ার জন্য জানব। কোরআনের মধ্যে আল্লাহ তায়ালা বারবার জাহান্নামের ব্যাপারে সতর্ক করেছেন।

জাহান্নামিদের যেই পানীয় দেওয়া হবে সেটি হবে অত্যন্ত নিকৃষ্ট, পুঁজ জাতীয় পানীয়। এ ছাড়া তাদের উত্তপ্ত পানি পান করতে দেওয়া হবে। এগুলো যখনই তারা খাবে তাদের নাড়ি-ভুঁড়িসহ বের হয়ে আসবে।

সুতরাং, জাহান্নামের শাস্তির বিষয়টি মূলত এত কঠিন যে, কোনো বর্ণনাকারী বা কোনো লেখক বা কোনো কবি বা কোনো সাহিত্যিক তার ভাষা দিয়ে তা বুঝাতে পারবে না। এটি বুঝানোর মতো কোনো বক্তব্য আল্লাহর রাসুল দিয়ে যাননি।

এক কথায় বলতে গেলে, যেটি কোরআনে কারিমের মধ্যে আল্লাহ তায়ালা তাদের জীবনের অবস্থা কেমন হবে সেই ব্যাপারে বলে দিয়েছেন, সেটি হলো, ‘না সেখানে তাদের মৃত্যু আসবে, না সেখানে তাদের জীবন থাকবে।’ এই কথাটুকু বুঝলেই আপনি বুঝতে পারবেন সেটি কত ভয়ংকর।


©2014 - 2018. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Design & Developed BY ThemesBazar.Com