বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ১২:০২ অপরাহ্ন

গাজীপুরে ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্টের অগ্রগতি পর্যালোচনা এবং অবহিতকরণ সভা

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ৩ অক্টোবর, ২০১৮
গাজীপুরে ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্টের অগ্রগতি পর্যালোচনা এবং অবহিতকরণ সভা

আতিক, গাজীপুর জেলা প্রতিনিধি ঃ গাজীপুরে জিসিসি-ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্টের অগ্রগতি পর্যালোচনা এবং পরবর্তী কার্যক্রম অবহিতকরণ সভা ৩ অক্টোবর বুধবার দুপুরে নগর ভবনের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

জিসিসি-ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্ট আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের (জিসিসি) মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম।

জিসিসি-ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্টের সোস্যাল এ্যান্ড বিহিবিয়ার চেঞ্জ কমিউনিকেশন কর্মকর্তা মোঃ মনোয়ারুল ইসলামের সঞ্চলনায় সভায় বক্তব্য রাখেন জিসিসি’র প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (যুগ্ম সচিব) কে.এম. রাহাতুল ইসলাম, ইউনিসেফ ঢাকা- ময়মনসিংহ বিভাগের চীফ অব ফিল্ড অফিস মোঃ ওমর ফারুক, গাজীপুরের সিভিল সার্জন ডাঃ সৈয়দ মোঃ মনজুরুল হক।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন জিসিসি’র ভারপ্রাপ্ত সচিব ও প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা ডঃ খ.ম. কবিরুল ইসলাম।

ইউনিসেফ সেক্টর কর্মকর্তাগণ পরিকল্পনার বিপরীতে অদ্যাবধি অর্জিত অগ্রগতি উপস্থাপন করেন ইউনিসেফ ঢাকা- ময়মনসিংহ বিভাগের ইমারজেন্সি প্রোগ্রাম অফিসার মোঃ আমান উল্লাহ, শিক্ষা প্রোগ্রাম অফিসার মোঃ সাব্বির আহমেদ, শিশু সুরক্ষা প্রোগ্রাম অফিসার মোঃ ইমতিয়াজ আহম্মেদ, কমিউনিকেশন ফর ডেভেলপমেন্ট কর্মকর্তা রওশন রহমান, জেলা স্বাস্থ্য তত্তাবধায়ক সত্য রঞ্জন ধর প্রমুখ।

সভায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জিসিসি’র প্রধান সম্পত্তি কর্মকর্তা মুহাম্মদ শাহাদত খন্দকার, অঞ্চল-১ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা কে.এম. জহিরুল আলম, অঞ্চল-২ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা মাহবুবা বিলকিস, অঞ্চল-৪,৫ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আবু সাইদ মোল্লা, গাজীপুর জেলা পুলিশ অফিসের ইন্সপেক্টর (ক্রাইম) মোঃ রফিকুল ইসলাম, জিসিসি-ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্টের সিনিয়র শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ শফিকুল হাসান, প্লানিং এ্যান্ড মনিটরিং কর্মকর্তা খন্দকার আবু সালেকসহ জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের কর্মকর্তা, সাংবাদিক, জিসিসি’র বিভিন্ন ওয়ার্ড কাউন্সিলর, কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ। অনুষ্ঠানের শুরুতে কোরআন তেলাওয়াত করেন জিসিসি জামে মসজিদের সহকারী ইমাম মোঃ মাহমুদুল হাসান।

স্বাগত বক্তব্যে জিসিসি’র ভারপ্রাপ্ত সচিব ও প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা ডঃ খ.ম কবিরুল ইসলাম বলেন, গাজীপুরে দারিদ্রর হার বেশী এবং এখানে বাল্য বিয়ের হারও বেশী। তাই এখানে ইউনিসেফের কাজ করার ক্ষেত্রও বেশী।

জিসিসি-ইউনিসেফ আরবান প্রজেক্ট সম্পর্কে ধারনা প্রদান করে ইউনিসেফ ঢাকা- ময়মনসিংহ বিভাগের চীফ অব ফিল্ড অফিস মোঃ ওমর ফারুক বক্তব্যে বলেন, ২০২০ সাল পর্যন্ত গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন এ শিশুদের উন্নয়নে কাজ করবে এ জন্য তিনি মেয়রের বলিষ্ঠ নেতেৃত্বে সহযোগীতা চান ।

গাজীপুরের সিভিল সার্জন ডাঃ সৈয়দ মোঃ মনজুরুল হক ইউনিসেফের সহযোগীতায় এ সিটি কর্পোরেশনের বিভিন্ন পুষ্টি কার্যক্রম তুলে ধরেন ।

জিসিসি’র প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (যুগ্ম সচিব) কে.এম. রাহাতুল ইসলাম বলেন, ইউনিসেফ যে সকল কাজ করছে, সে সকল কাজ আমাকে একা দেখ ভাল করতে হয়েছে। এখন সুযোগ্য মেয়র স্যার থাকায় সে কাজ আরও গতিশীল হবে।

জিসিসি’র মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম তিনি তার বক্তব্যে বলেন, আমরা শুধুমাত্র ৫ নম্বর জোনের ১২টি ওয়ার্ডেই নয়, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ৫৭টি ওয়ার্ডে ইউনিসেফের এ কার্যক্রম সম্প্রসারণের উদ্যোগ গ্রহন করবো। তিনি সকল ওয়ার্ড কাউন্সিলরকে ইউনিসেফ কার্যক্রম বাস্তবায়নে সার্বিক সহযোগিতা করতে বলেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
©2014 - 2021. RajshahiNews24.Com . All rights reserved.
Theme Developed BY ThemesBazar.Com
%d bloggers like this: