১৮ অগাস্ট ২০২২, বৃহস্পতিবার, ০৩:৫৯:০২ অপরাহ্ন
রাজশাহীতে ছুরিকাঘাতে যুবক খুন
  • আপডেট করা হয়েছে : ১৯-০৬-২০২২
রাজশাহীতে ছুরিকাঘাতে যুবক খুন

রাজশাহীতে স্ত্রীকে ভাগিয়ে নিয়ে গিয়ে বিয়ে করার জের ধরে ছুরিকাঘাতে এক যুবক খুন হয়েছেন। রবিবার (১৯ জুন) সন্ধ্যা সোয়া ৭টার দিকে মহানগরীর শাহমখদুম থানাধীন নওপাড়া (মাস্টাপাড়া) এলাকায় নিহত যুুবকের ভাড়া বাড়ির পাশে এমন ঘটনা ঘটে। হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে টিটন আলী (৪০) নামের এক যুবক আটক করেছে শাহমখদুম থানা পুলিশ।

নিহত যুবকের নাম আব্দর রহমান মকুল(৪৫)।  তিনি পবা উপজেলার বড়গাছি গ্রামের আব্দুল গাফ্ফারের ছেলে বলে জানা গেছে।

ঘটনার সত্যত নিশ্চিত করে শাহমখদুম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ‘নিহত মুকুল শাহমুখদুম থানাধীন মাস্টার পাড়া এলাকায় আনার নামে এক ব্যক্তির বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। নিহত মুকুলের ভাড়া বাসার পাশেই অভিযুক্ত ব্যক্তি মহানগরীর সাধুর মোড় রাণীনগর এলাকার আব্দুল লতিফের ছেলে টিটন আলী তাকে ছুরিকাঘাত করে রাস্তার পাশ দিয়ে যাওয়া একটি ট্রাকে উঠে দৌঁড়ে পালানোর চেষ্টা করেন। এসময় শাহমখদুম থানার টহল টিম ধাওয়া দিয়ে অভিযুক্ত টিটনকে আটক করে। তবে টিটন মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হওয়ায় তাকে পুলিশ হেফাজতে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।’

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে- রবিবার সন্ধ্যা সোয়া ৭টার দিকে নিহত মুকুল তার ভাড়া বাসা থেকে বের হন। আগে থেকেই ওঁৎ পেতে থাকা টিটন তাকে দেখামাত্র ছুরিকাঘাত করে দৌঁড়ে পালানোর চেষ্টা করে। পরে স্থানীয়রা গুরুতর আহত অবস্থায় মুকুলকে উদ্ধার করে রামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে ওসি আরও বলেন, ‘কিছুদিন আগে নিহত মুকুল অভিযুক্ত টিটনের স্ত্রীকে ভাগিয়ে নিয়ে বিয়ে করেন। এই রাগে-ক্ষোভে টিটন তাকে ছুরিকাঘাত করে। পরে আমার টহল পুলিশ অভিযুক্তকে আটক করতে সক্ষম হন। নিহত মুকুলের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রামেক হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত রক্তমাখা একটি ছুরি ও বেশ কিছু আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে।’ এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত থানায় কোনো মামলা হয়নি বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

শেয়ার করুন