২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, বৃহস্পতিবার, ০৮:২১:২৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ওআইসি সদস্য দেশগুলোর তথ্যমন্ত্রীদের সম্মেলনে যোগ দিতে তুরস্ক পৌঁছেছেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী রাজধানীর ঝিলপাড় বস্তিতে আগুন আকাশে শাবান মাসের চাঁদ, ২৫ ফেব্রুয়ারি শবেবরাত রাজশাহীতে তিন সহযোগিসহ ধর্ষ’ক গ্রেপ্তার মা-বাবাকে আর বৃদ্ধাশ্রমে দিতে হবে না: সমাজকল্যাণ মন্ত্রী ফসলি জমির মাটি উত্তোলন, ২ ব্যক্তির ১৫ দিনের কারাদণ্ড,৫০ হাজার টাকা জরিমানা চাটখিল থানার পাশেই, টেক্সটাইলের রং ও ক্যামিকেল দিয়ে তৈরী হচ্ছে জন্মদিনের কেক,নিরব ভুমিকায় উপজেলা প্রশাসন! কমলগঞ্জে রাইস ট্রান্সপ্লান্টারের মাধ্যমে ধানের চারা রোপণ মৌলভীবাজার হাফিজা খাতুন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগীতা ও পুরস্কার বিতরণ জীববৈচিত্র্য ফিরে পাচ্ছে শেরপুরের গারো পাহাড়
রাসিকের কাউন্সিলর নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বি নেই প্রার্থী রবিউলের
  • আপডেট করা হয়েছে : ২৫-০৫-২০২৩
রাসিকের কাউন্সিলর নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বি নেই প্রার্থী রবিউলের

রবিউল ইসলাম রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) নির্বাচনে ২০ নম্বর ওয়ার্ডে থেকে নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। এই ওয়ার্ডে মাত্র একজন প্রার্থী মনোনয়নপত্র তুলেছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ওয়ার্ডের কেউ নেই।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) দুপুরে মনোনয়ন যাচাইবাছাই অনুষ্ঠিত হবে। সব কাগজপত্র ঠিক থাকলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় কাউন্সিলর নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন রবিউল ইসলাম। তিনি ওই ওয়ার্ডের সদ্য সাবেক কাউন্সিলর।

জানা গেছে, রবিউল ইসলাম রাজশাহী সিটি করপোরেশনের রাণীবাজার মুন্সিডাঙ্গা এলাকার বাসিন্দা হাতেম আলীর ছেলে। তিনি এর আগে একই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর নির্বাচিত হন। এবারও তিনি কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করছেন। ওয়ার্ডে ৬ হাজার ৫৭৮ জন ভোটারের মধ্যে তিনি ছাড়া কেউ মনোনয়নপত্র উত্তোলন করেননি বলে রাজশাহী অঞ্চলিক নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে।

রবিউল ইসলাম বলেন, আমি জানি না যে আমার ওয়ার্ড থেকে কেউ মনোনয়ন তোলেনি। আপনার মুখ থেকে শুনলাম। ভালো লাগলো। আমি গত পাঁচবছরে এলাকার উন্নয়নে যথেষ্ট ভূমিকা রেখেছি। ওয়ার্ডবাসীর আস্থাও অর্জন করেছি। আমাকে ভালোবেসে তাই কেউ মনোনয়নপত্র জমা দেয়নি। আমি এলাকাবাসীর হয়ে আগামীতে আরও কাজ করতে চাই।

রাজশাহী আঞ্চলিক নির্বাচন অফিস জানিয়েছে, ২০ নং ওয়ার্ডে মোট ভোটার ৬ হাজার ৫৭৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৩ হাজার ১৪০ ও নারী ভোটার ৩ হাজার ৪৩৮ জন।

নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা দেলোয়ার হোসেন জানান, বৃহস্পতিবার (২৫ মে) মনোনয়ন যাচাইবাছাই হবে। যাচাইবাছাই শেষ হলে প্রার্থীর সব কাগজপত্র ঠিক থাকলে মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় তাকে নির্বাচিত ঘোষণা করা হবে। ওই ওয়ার্ডে রবিউল ইসলাম বাদে অন্য কেউ মনোনয়নপত্র উত্তোলন করেননি।

রাজশাহী সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে চারজন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। কাউন্সিলর পদে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন ১২৪ জন। এছাড়া সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন ৪৬ জন। বৃহস্পতিবার দুপুরে মনোনয়ন যাচাইবাছাই অনুষ্ঠিত হবে। ১ জুন মনোনয়ন প্রত্যাহার করার শেষ দিন। প্রতীক বরাদ্দ হবে আগামী ২ জুন।

এরপর প্রার্থীরা প্রচারণায় নামবে। আগামী ২১ জুন ৩০টি ওয়ার্ডে সম্ভব্য ১৫২টি কেন্দ্রের ১ হাজার ১৭৩টি বুথে ইভিএমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

শেয়ার করুন