৬ অগাস্ট ২০২২, শুক্রবার, ০৫:১৩:৩৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
পরীমণির সন্তানের ছবি ও নাম প্রকাশ প্রেমের টানে ছুটে এলেন অস্ট্রিয়ান প্রকৌশলী গরু পাচার মামলায় পশ্চিমবঙ্গের তৃণমূল নেতা অনুব্রত মণ্ডল গ্রেপ্তার আরব নারীদের নিয়ে মানহানিকর প্রতিবেদন, দ্য ইকোনোমিস্টের বিরুদ্ধে মামলা সেনানিবাসে তৃতীয় জানাজা শেষে লে. কর্নেল ইসমাইলকে বনানীতে দাফন সুইস ব্যাংকের তথ্য চাওয়া নিয়ে রাষ্ট্রদূত মিথ্যা বলেছেন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ব্যক্তিগত সফরে শুক্রবার টুঙ্গিপাড়ায় যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জ্বালানি তেলের দাম যুক্তরাষ্ট্রে পাঁচ মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন বেটউইনারের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করলেন সাকিব রাবির কেন্দ্রীয় মন্দির সভাপতির বিরুদ্ধে বর্ণবাদী আচরণের অভিযোগ
পদ্মাসেতুর পর এবার ভোলার গ্যাসের প্রত্যাশা
  • আপডেট করা হয়েছে : ১০-০৬-২০২২
পদ্মাসেতুর পর এবার ভোলার গ্যাসের প্রত্যাশা

২৫ জুন পদ্মাসেতুর উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে বরিশালের সঙ্গে রাজধানী ঢাকার সরাসরি সড়কপথে যোগযোগ স্থাপন হচ্ছে। আর এরমধ্য দিয়ে প্রাচ্যের ভ্যানিস হিসেবে খ্যাত বরিশাল সার্বিক দিক থেকে এগিয়ে যাবে  বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।



তাদের দাবি, পদ্মাসেতু হলে বরিশাল অঞ্চলে শিল্পবিপ্লব ঘটবে। যার মধ্য দিয়ে কর্মসংস্থানের নতুন দুয়ার খুলবে তরুণ প্রজন্মের জন্য। তবে দ্রুত শিল্প বিল্পব ঘটাতে চাইলে পদ্মা সেতুর পাশাপাশি ভোলার প্রাকৃতিক গ্যাস বরিশালে দেওয়ার দাবি তুলেছেন ব্যবসায়ীরা।

ব্যবসায়ী আরিফুর রহমান বলেন,পায়রা বন্দর এ অঞ্চলের অর্থনৈতিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে শুরু করেছে। সেইসঙ্গে পদ্মা সেতু চালু হলে অর্থনৈতিক উন্নয়নের পাশাপাশি সড়কপথে ঢাকাসহ সারাদেশের সঙ্গে বরিশালের যোগাযোগ ব্যবস্থার বৈপ্লবিক পরিবর্তন ঘটাবে। সেইসঙ্গে পিছিয়ে থাকা এ জনপদের পর্যটন শিল্পেরও বিকাশ ঘটবে। পতেঙ্গা  ও মোংলা বন্দরের জন্য যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নের কারণেই চট্টগ্রাম আর খুলনাতে শিল্প বিপ্লব ইতিমধ্যে ঘটেছে। বরিশালেও এমন হবে।  


প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সু-দৃষ্টির কারণে দক্ষিণাঞ্চলের ব্যপক উন্নয়ন হয়েছে দাবি করে বরিশাল চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি সাইদুর রহমান রিন্টু বলেন,  সরকারের পরিকল্পিত উন্নয়নের অংশ পায়রা বন্দর,তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্র, পদ্মাসেতুসহ বিভিন্ন প্রকল্প। এক কথায় ধারাবাহিক উন্নয়নে এখন আমরা শতভাগ নিশ্চিত বরিশালে দ্রুত শিল্প বিপ্লব ঘটবে। আর এ কাজটিতে সময়ের সঙ্গে এগিয়ে নিতে হলে এখন ভোলার গ্যাস পাইপ লাইনের মাধ্যমে বরিশালে আনতে হবে। প্রধানমন্ত্রীও ভোলার গ্যাসের বিষয়ে বরিশালবাসীকে আগেই আশ্বস্ত করেছেন ।


 তিনি বলেন,দক্ষিণাঞ্চলের হাব হচ্ছে বরিশাল। বরিশালে গ্যাস আসা মানেই পোশাক শিল্পসহ উৎপাদন ও রপ্তানিমুখি নানান শিল্পের কারখানা গড়ে উঠবে। পদ্মা সেতু নির্মাণকালের মধ্যেই অনেক প্রতিষ্ঠানতো ভূমি সংগ্রহের কাজে সেরে ফেলেছেন। আমাদের এ অঞ্চলের যে কর্মীরা এখন ঢাকায় বা  চট্টগ্রামে গিয়ে  গার্মেন্টেসে কাজ করছেন ।  তখন তারা নিজ এলাকায় থেকেই কাজ করে আয়-রোজগার করতে পারবেন। এক্ষেত্রে নিজ এলাকায় থাকতে পারলে ঢাকা,চট্টগ্রামের থেকে কর্মীদের জীবনমান সহজ হবে, পাশাপাশি শিল্প-কারখানা মালিকদেরও ব্যয় কমবে।


এফবিসিসিআইর পরিচালক নিজাম উদ্দিন মৃধা বলেন, পদ্মাসেতু হলে নদীবেষ্টিত বরিশালে পর্যটন শিল্পের বিকাশ ঘটলে নৌশিল্পেও আমুল পরিবর্তন ঘটবে। সম্ভাবনাময় নৌ সেক্টরেও বাড়বে বিনিয়োগ। আর ভোলার গ্যাস এলে বরিশালে দ্রুত শিল্প বিপ্লব ঘটবে।  

শেয়ার করুন