০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, সোমবার, ০৯:২০:০৬ পূর্বাহ্ন
নিজ শরীরে আগুন দেওয়া সেই যুবকের মৃত্যু
  • আপডেট করা হয়েছে : ০৮-৬-২০২২
নিজ শরীরে আগুন দেওয়া সেই যুবকের মৃত্যু

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) ক্যাম্পাসে নিজ শরীরে আগুন দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করা সেই যুবক মারা গেছেন। বুধবার (৭ ডিসেম্বর) রাত সাড়ে ১১টার দিকে রামেকের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

এর আগে বুধবার (৭ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা আনুমানিক ৭টার দিকে রামেক ক্যাম্পাসের নুরুন্নবী হোস্টেলের সামনে আগুন দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন ওই যুবক। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে রামেক হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ডা. আফরোজা নাজনীন মৃত্যুর বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন। নিহত যুবকের নাম সাইফুর রহমান রাফি (২৮)। তিনি নগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার হেতেমখাঁ এলাকার বাবুলের ছেলে।

ডা. আফরোজা বলেন, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ ক্যাম্পাসের নুরুন্নবী হোস্টেলের সামনে রাফি নামের এক যুবক নিজ শরীরে আগুন দেন। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে আনলে সেখান থেকে ২৯ নম্বর ওয়ার্ডে (বার্ন ইউনিট) ভর্তি করা হয়। আগুনে রাফির শরীরের ৯৯ শতাংশের বেশি পুড়ে গিয়েছিল। হাসপাতালে নেওয়ার কয়েক ঘণ্টা পরেই তার মৃত্যু হয়। রাত ১টার দিকে পরিবারের সদস্যদের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, তার মা এই হাসপাতালের ডেইলি লেবার হিসেবে কাজ করেন। রাফির পরিবারের সাথে কথা বলে জানা গেছে, সে মানসিক রোগে ভুগছেন। কোথাও কাজে যোগ দিলেও করতে পারতেন না। চার-পাঁচ বছর ধরে মানসিক রোগ বিশেষজ্ঞের কাছে তার চিকিৎসা চলছিল। মানসিক অসুস্থতার কারণে তিনি আত্মহত্যা করেছেন।

শেয়ার করুন